১৫ দিনে দুইবার ভাঙল একই ব্রিজের পাটতন

নাগরপুর প্রতিবেদক : যথাযথভাবে মেরামত না করা, নিম্নমানের কাজ এবং অতিরিক্ত মাল বোঝাই ট্রাক চলাচলের কারণে আবার বেইলী ব্রিজের পাটাতন ভেঙে ৮ ঘন্টা যাবৎ যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

গত ১৫ দিন আগেও এই ব্রিজটির পাটাতন ভেঙ্গে যান চলাচল বন্ধ হয়েছিলো।

তারপর মেরামত করে যান চলাচল স্বাভাবিক করা হলেও আজ (১৭ সেপ্টেম্বর) আবার তা ভেঙে টাঙ্গাইল-আরিচা আঞ্চলিক মহাসড়কে যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

জানা যায়, শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) ভোর সাড়ে ৪টায় নাগরপুর উপজেলার ভাদ্রা ইউনিয়নের টেংরীপাড়া এলাকায় বেইলী ব্রিজের পাটাতন ভেঙে গাছ ভর্তি একটি ট্রাক আটকে যায়।

এরপর থেকে বেলা সাড়ে ১১টা পর্যন্ত এ সড়কের যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

ভাদ্রা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. হাবিবুর রহমান খান বিষয়টি নিশ্চিত  করে জানান, নাগরপুর থেকে গাছ ভর্তি একটি ট্রাক মানিকগঞ্জের দিকে যাচ্ছিলো।

ভোর সাড়ে ৪টার দিকে ট্রাকটি ট্রেংরীপাড়া বেইলী ব্রিজের পাটাতন ভেঙ্গে ট্রাকটি আটকে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

ব্রিজটির ধারণ ক্ষমতা ৮ টন থাকলেও প্রতিনিয়ত এই ব্রিজ দিয়ে ১৫ থেকে ২০ টন ওজনের যানবাহন চলাচল করায় ঘটছে দুর্ঘটনা।

গত ১৫ দিন আগেও এই ব্রিজটির পাটাতন ভেঙ্গে যান চলাচল বন্ধ হয়েছিলো।

অতিরিক্ত মাল বোঝাই ট্রাক চলাচলের কারণে যানবাহন আটকে যান চলাচল বন্ধ হয়ে দুর্ভোগ পোহাতে হয়।

স্থায়ী সমাধানের জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাসহ সংশ্লিষ্টদের অবগত করা হয়েছে।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, বেইলী ব্রিজটি দীর্ঘদিন যাবত এই বেইলী ব্রিজটি ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে।

কয়েকবার সংস্কার করা হলেও স্থায়ীভাবে মেরামত করা হচ্ছে না। ফলে বার বার দুর্ঘটনা ঘটছে।

টাঙ্গাইল সড়ক বিভাগের সহকারি প্রকৌশলী এস.এম আলামিন বলেন, ট্রাক সরানোসহ ব্রিজের পাটাতন সংস্কার করে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক করা হবে। সম্পাদনা – অলক কুমার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *